২৪ জুন ২০২৪, সোমবার, ০৬:০৪:৫৪ পূর্বাহ্ন
মশা না কমলে ডেঙ্গুতে মৃত্যুও কমবে না: স্বাস্থ্যমন্ত্রী
  • আপডেট করা হয়েছে : ১২-০৯-২০২৩
মশা না কমলে ডেঙ্গুতে মৃত্যুও কমবে না: স্বাস্থ্যমন্ত্রী

স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণমন্ত্রী জাহিদ মালেক বলেছেন, শুধু ঢাকা সিটিতে নয়, সারা দেশে ডেঙ্গু রোগীর সংখ্যা বাড়ছে। সারা দেশে দেড় লাখ মানুষ ডেঙ্গুতে আক্রান্ত হয়েছেন। প্রতিদিন নতুন আড়াই হাজার মানুষ ডেঙ্গুতে আক্রান্ত হচ্ছেন। ডেঙ্গু আক্রান্ত হয়ে এ পর্যন্ত সাতশো রোগীর মৃত্যু হয়েছে। এখনো মশা বাড়ছে, তাই রোগীও বাড়ছে। মৃত্যুও বাড়ছে। যে পর্যন্ত মশা না কমবে, সে পর্যন্ত ডেঙ্গু মৃত্যুও কমবে না। 


আজ শনিবার দুপুরে মানিকগঞ্জ সদর উপজেলায় মানিকগঞ্জ কর্ণেল মালেক মেডিকেল কলেজ ‘ডে’ উপলক্ষে হাসপাতালের অন্তঃবিভাগের ডেঙ্গু ইউনিট উদ্বোধন অনুষ্ঠান শেষে সাংবাদিকদের তিনি এসব কথা বলেন। 


স্বাস্থ্যমন্ত্রী বলেন, দেশের প্রতিটি সরকারি ও বেসরকারি হাসপাতালে স্যালাইনের কোনো অভাব নেই। আমরা সাত লাখ ব্যাগ স্যালাইন ভারত থেকে আমদানি করার অনুমোদন দিয়েছি। আজ কালের মধ্যে সাড়ে তিন লাখ ব্যাগ স্যালাইন দেশে আসবে। বাকিটা পরের দিন আসবে, এর বেশি লাগলে আমরা আনার ব্যবস্থা করবো। 


মন্ত্রী আরও বলেন, মশা নিধনের কার্যক্রম কয়েক মাস করলে চলবে না। সারা বছর মশা নিধনের কার্যক্রম চলাতে হবে। তবেই মশা নিধন করা সম্ভব হবে। এখনো মশা বাড়ছে, তাই রোগীও বাড়ছে। এতে মৃত্যুও বাড়ছে। যে পর্যন্ত মশা না কমবে, সে পর্যন্ত মৃত্যুও কমবে না। 


বর্হিবিশ্বে ভালো করে স্প্রে করে এবং সারা বছর পরিস্কার রাখে। এর জন্য ওই সব দেশে মশাও কম ও মৃত্যুও কম। অনেকেই বলেন আমাদের দেশের ওষুধে মশা মরে না, কিছুক্ষণের জন্য নির্জ্জীব হয়ে পড়ে থাকে। 


স্বাস্থ্য মন্ত্রী বলেন, আওয়ামী লীগের রাজনীতি হচ্ছে দেশের উন্নয়ন। বিএনপি জামায়েতের রাজনীতি হচ্ছে সন্ত্রাস আর গ্রেনেড হামলা করা। তারা মানুষের উন্নয়ন চায় না তারা মানুষকে পুড়িয়ে মারে। তারা দেশের স্বাধীনতাও চায়নি। বিএনপি অপ্রচার ও মিথ্যা কথার রাজনীতি করে। তাদের কাজই হলো মিথ্যাকে সামনে এনে মানুষকে বিভ্রান্তি করা। 


তিনি বলেন, সামনে জাতীয় নির্বাচন, দেশের মানুষ সঠিক সিদ্ধান্ত নেবেন। তারা আর বিএনপি জামায়াতকে ক্ষমতায় আনতে চান না। বিএনপি হচ্ছে নেতা বিহীন একটি দল। নেতা বিহীন দল আর চালক ছাড়া গাড়ি একই কথা। ওই চালক ছাড়া গাড়িতে মানুষ চড়তে চায় না। 


অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন মানিকগঞ্জ কর্নেল মালেক মেডিকেল কলেজের অধ্যক্ষ জাকির হোসেন, মানিকগঞ্জ সিভিল সার্জন ডাক্তার মোয়াজ্জেম আলী খান চৌধুরী, কর্নেল মালেক মেডিকেল কলেজের পরিচালক ডা. আরশ্বাদ উল্লাহ, জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক অ্যাডভোকেট আব্দুস সালাম, অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক রাজস্ব মহসীন মৃধা, অতিরিক্ত পুলিশ সুপার সুজন সরকার প্রমুখ


শেয়ার করুন