২৪ জুন ২০২৪, সোমবার, ০৭:১০:৫৮ পূর্বাহ্ন
পুঠিয়ায় কলেজ ছাত্রী শ্যালিকাকে ধর্ষণের চেষ্টা দুলাভাইয়ের
  • আপডেট করা হয়েছে : ১৯-১১-২০২৩
পুঠিয়ায় কলেজ ছাত্রী শ্যালিকাকে ধর্ষণের চেষ্টা দুলাভাইয়ের

রাজশাহীর পুঠিয়ায়র শিলমাড়িয়ায় এক কলেজ ছাত্রীকে ধর্ষণ করার অভিযোগ করেছে তার বাবা আজমত আলী। মেয়েকে ধর্ষণ চেষ্টার প্রতিবাদ করায় বাবা আজমত আলীকে মারধর করেছে অভিযুক্ত শাহীন আলী (২৮) ও তার পরিবারের লোকজন।


শনিবার (১৮ নভেম্বর) দুপুর দেড়টার দিকে পুঠিয়ার বিলমাড়িয়া পূর্ব পাড়ায় এ ঘটনা ঘটে। ভুক্তভোগী রুম্পা ও তার বাবা পুঠিয়া উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে চিকিৎসাধীন আছে। ওই ছাত্রী পুঠিয়া ধোপাপাড়া মেমোরিয়াল কলেজের প্রথম বর্ষের শিক্ষার্থী। অভিযুক্ত শাহীনের বাড়ি বিলমাড়িয়া দক্ষিণ পাড়ায়।


ভুক্তভোগী রুম্পা জানায়, শাহীন সম্পর্কে তার চাচাতো দুলাভাই। গত ছয়মাস থেকে সে আমাকে বিভিন্ন প্রলোভন দেয়। শনিবার দুপুর দেড়টার দিকে সে তাদের বাড়িতে এসে তার ঘরে ঢুকে তাকে ধর্ষণের চালায়। এতে তিনি চিৎকার করলে তার বাবা ছুটে আসে। কিছুক্ষন পর অভিযুক্ত শাহীনের বাবা রাজ্জাক আলী ও ভাই রাজীব এসে তার বাবাকে মারধর করে এবং তাকে  অপহরণের চেষ্টা করে।


ভুক্তভোগী বাবা আজমত আলী জানান, দুপুরে মেয়ে চিৎকার শুনে তার ঘরে যাই। এসময় অভিযুক্ত শাহীন পালিয়ে যায়। পরে শাহীন ও তার পরিবারের লোকজন এসে তাকে মারধর করে এবং তার মেয়েকে জোরপূর্বক তুলে নিয়ে যাওয়ার চেষ্টা করে।


অভিযুক্ত শাহীন জানায়, ছাত্রী তার শ্যালিকা। তার সাথে একটু মজা করছিলাম। সে চিৎকার করলে সবাই জেনে যায়।  স্থানীয় ইউপি সদস্য নজরুল ইসলাম জানান, আজমত আলী ও তার মেয়ে মারমারিতে আহত হয়ে পুঠিয়া স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি আছে।


পুঠিয়া থানার ওসি সাইদুর রহমান বলেন, এ ঘটনায় দুই পক্ষই থানায় অভিযোগ করেছে। ঘটনা তদন্ত করে আইনি ব্যবস্থা নেওয়া হবে।


শেয়ার করুন